৪০ মিনিটের নাটকে ৩৮ মিনিটই বিজ্ঞাপন: দর্শক নাটক দেখবে কেন?- ইন্তেখাব দিনার

  ৬, অক্টো ২০১৫  |    Slider, ইন্টারভিউ  |    2227

ইন্তেখাব দিনারের এক্সক্লুসিভ ইন্টারভিউ (ভিডিও)

কোথাও কেউ নেই নাটকের বাকের ভাই-এর ফাসি আদেশের বিরুদ্ধে মাঠে নেমেছিলো বাংলাদেশী টিভি দর্শকরা। সে কথা ভোলার নয়। কিন্তু এখনকার টিভি দর্শকরা হয়তো জানেই না কখন কোন সিরিয়াল চলছে চ্যানেলগুলোতে। এখন তারা হুমরি খেয়ে পড়ে ভারতীয় চ্যানেল স্টার জলসার কিরণ মালা বা চোখের তারা; কিংবা বোঝেনা সে বোঝেনা সিরিয়ালের জন্য। আবার কেউ হয়তো সারাদিন কাজ সেরে বাসায় ফিরে বাংলাদেশী চ্যানেল ক্লিক করে তখন হয়তো দেখে সব চ্যানেলে এক যোগে চলছে টকশো বা কোনো লাইভ মিউজিক প্রোগাম অথবা লাইভ প্রোগাম। সবই একসাথে। তখন কি করবে একজন দর্শক? বাধ্য হয়ে নিজের মতো করে উড়াল দেয় ভিনদেশীয় সংস্কৃতির দিকে। কারণ, তাদের হাতে এখন রিমোট। মুক্ত সংস্কৃতি। এক সময় এমনটা ছিলো না। আজ রবিবার, অয়োময়, জন্মভূমির মতো ধারাবাহিক নাটক দেখার জন্য হুমরি খেয়ে পড়তো দর্শকরা। থাকতো অপেক্ষায়। সেসব নাটকের ডায়ালগগুলো ঘুরতো মানুষের মুখে মুখে। সেই স্বপ্নীল দিন হারিয়েছে বাংলাদেশের মিডিয়া। এর কারণ কি? কিভাবে আগের সেই দিন ফিরিয়ে আনা যায় এসব বিষয়ে মিডিয়া কথায় খোলামেলা ভিডিও ইন্টারভিউ দিয়েছেন এসময়ে জনপ্রিয় অভিনেতা ইন্তেখাব দিনার। সাক্ষাৎকারে দিনার বলেছেন চ্যানেলগুলোর কোনো প্রচার নীতিমালা না থাকার কারণেই  দর্শকরা বাংলাদেশী চ্যানেল বিমুখ হচ্ছে। তারা ঝুকে পড়ছেন ভারতীয় বা ভিন দেশীয় সংস্কৃতির দিকে। এই দায় আমাদের । কারণ এখন নাটক বানানো হচ্ছে না। এখন শুধু করা হচ্ছে ফুটেজ। যে ফুটেজ দিয়ে শুধুমাত্র এয়ার টাইম পূরণ করা হয়।

মিডিয়া কথা:- কেমন আছেন?

ইন্তেখাব দিনার:- জ্বি ভাল

মিডিয়া কথা:- আপনাকে এখন টিভি পর্দায় কম দেখা যাচ্ছে কেন?

ইন্তেখাব দিনার:-আসলে এখনো ঘণ ঘণ নাটক যাচ্ছে আমার, কিন্তু দর্শক সে নাটক দেখছে না্ সেকারণে তারা মনে করছেন আমি নাটক কম করছি। দেখা গেলো ৬ থেকে ৭ টি ধারাবাহিক একসাথে চলছে। মাসে ২৫ দিনই আমি শুটিং করছি। এর বেশী তো আর করা সম্ভব না। তারপরও দর্শকরা বলে ভাইয়া আপনাকে তো এখন দেখি না। তার কারণ হচ্ছে একটি- তিনি বাংলাদেশী চ্যানেলই দেখছেন না। বাংলাদেশী নাটক দেখছেন না।

মিডিয়া কথা:- আপনি বলছেন, এদেশের মানুষ বাংলাদেশী চ্যানেলের নাটক দেখছে কম। আমাদের চ্যানেল বা চ্যানেলের নাটকে দর্শক কমে যাওয়ার কারণ কি হতে পারে বলে আপনি মনে করেন?

ইন্তেখাব দিনার:- আসলে এটার পুরো ব্যর্থতাই আমাদের। আমরা আমাদের জায়গাটা ধরে রাখতে পারিনি। চ্যানেলগুলোর নেই সুনির্দিষ্ট কোনো নীতিমালা। একটি নাটক কিভাবে চলবে, কখন চলবে, বা কোন দর্শক এই নাটক দেখবে তার নেই কোনো নীতিমালা। আর এ বিষয়ে কারো কোনো চিন্তাভাবনাও নেই। একটি ৪০ মিনিটের নাটকে ৩৮ মিনিটই বিজ্ঞাপন থাকে তবে তা দর্শকরা নাটক কেন দেখবে? আর সবার হাতেই এখন খোলা সংস্কৃতি।

এছাড়াও আরো নানা বিষয়ে খোলামেলা কথা বলেছেন ইন্তেখাব দিনার।

ভিডিও ইন্টারভিউ 

সংশ্লিষ্ট খবর